বুধবার, ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০২:২২ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
চেক চুরি: চট্টগ্রামে অভিযুক্ত আইনজীবীকে শোকজের সিদ্ধান্ত বিশ্ব পর্যটন সংস্থার ভাইস চেয়ার বাংলাদেশ ফরিদগঞ্জ সংবাদপত্র এজেন্ট স্বত্বাধিকারী তাজুল ইসলামের বড় ছেলে পাভেলের প্রথম মৃত্যুবার্ষিকী মহামারির চ্যালেঞ্জ কাটাতে সরকারের সহায়তা চেয়েছে বিজিএমইএ সাড়ে ১২ বছর ধরে বিএনপির তর্জন-গর্জন শুনে আসছি হাইমচরে পানের বরজ তছনছ ও হাফিজুর মিজির উপর সন্ত্রাসী হামলা- আহত ৩ চাঁদপুরের চান্দ্রায় চির্কা অগ্রগামী বহুমুখী সমবায় সমিতির এমডি দেলোয়ার আটক সাতক্ষীরা একই পরিবারের এ চার জনকে হত্যার দায়ে ফাঁসির রায় দিয়েছে আদালত আফগানিস্তানে খাদ্য-ওষুধ পাঠাতে প্রস্তুত বাংলাদেশ: মোমেন দুর্নীতি-মাদকের সঙ্গে জড়িত পুলিশ সদস্যদের ছাড় নয়: আইজিপি

সোনালি ঐতিহ্যে ফিরেছে মসলিন, আবারও মাতাবে বিশ্ব!

মঞ্জুর এলাহী ( নারায়ণগঞ্জ জেলা সংবাদদাতা): বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী বলেছেন,  সোনালি ঐতিহ্যে ফিরেছে ঢাকাই মসলিন, আবারও মাতাবে বিশ্ব। তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশ তাঁত বোর্ডের  বাস্তবায়নে এ প্রকল্পের মাধ্যমে ১৭০ বছর আগে হারিয়ে যাওয়া বাংলাদেশের সোনালি ঐতিহ্য ও বিশ্ববিখ্যাত ব্র্যান্ড ঢাকাই মসলিন পুনরুদ্ধার করে হৃতগৌরব ফিরিয়ে আনা হয়েছে।’

মঙ্গলবার (২৭ জুলাই) বাংলাদেশের সোনালি ঐতিহ্য মসলিনের সুতা তৈরির প্রযুক্তি ও মসলিন কাপড় পুনরুদ্ধার (প্রথম পর্যায়) প্রকল্পকে জাতীয় পর্যায়ে সাধারণ (প্রাতিষ্ঠানিক) ক্যাটাগরিতে ‘জনপ্রশাসন পদক-২০২১’ প্রদান করা হয়। পদক প্রাপ্তির পর সচিবালয়ে বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ে নিজের অফিস কক্ষে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

এ সময় বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. আবদুল মান্নান, বাংলাদেশ তাঁত বোর্ডের চেয়ারম্যান শাহ আলমসহ মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

মন্ত্রণালয় থেকে পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়েছে।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, মঙ্গলবার (২৭ জুলাই) রাজধানীর ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত মূল অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষে  মুক্তিযুদ্ধ বিষয়কমন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হকের কাছ থেকে বাংলাদেশের সোনালি ঐতিহ্য মসলিনের সুতা তৈরির প্রযুক্তি ও মসলিন কাপড় পুনরুদ্ধার (প্রথম পর্যায়) প্রকল্পের পক্ষে বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. আবদুল মান্নান এ পুরস্কার গ্রহণ করেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবন প্রান্ত থেকে ভার্চুয়ালি পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে যুক্ত ছিলেন।

মন্ত্রী বলেন, ‘ব্যাপক অনুসন্ধান ও গবেষণার মাধ্যমে মসলিনের কাঁচামাল ফুটি কার্পাস খুঁজে বের করা, ফুটি কার্পাসের চাষাবাদ, সুতা উৎপাদন, কারিগরদের দক্ষতা উন্নয়ন করে উন্নতমানের মসলিন উৎপাদন করা সম্ভব হয়েছে। মসলিনের ভৌগোলিক নির্দেশক (জিআই) সনদ ও প্যাটেন্ট অর্জিত হওয়ায় দেশের ঐতিহ্যবাহী তাঁত শিল্পের টেকসই উন্নয়ন ও সম্প্রসারণের সম্ভাবনা সৃষ্টি হয়েছে। ঐতিহ্যবাহী ঢাকাই মসলিন রফতানি করে বিপুল পরিমাণ বৈদেশিক মুদ্রা অর্জিত হবে। আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলে বাংলাদেশের ভাবমূর্তিও উজ্জ্বল হবে।’


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


ফেসবুকে আমাদের অনুসরণ করুন

প্রযুক্তি সহায়তায় ইন্টেল ওয়েব