1. admin@srejonbangla52tv.com : admin :
সোমবার, ১০ অগাস্ট ২০২০, ০৬:৫৯ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
***পরীক্ষামূলক সম্প্রচার***
প্রধান খবর
ক্রিকেটার্স ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ(কোয়াব)সুনামগঞ্জ শাখার পরিচিত সভা অনুষ্টিত! দিরাইয়ের বিবিয়ানা ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষের অপসারনের দাবীতে এলাকাবাসীর মানববন্ধন অনুষ্ঠিত! সময়ের স্রোতে হারিয়ে যাচ্ছে গ্রামীণ খেলাধুলা। সুনামগঞ্জ জেলা যুবলীগের উদ্যোগে শোকের মাসে এতিম শিশুদের মধ্যে খাদ্য বিতরণ ! ইবি তরুণ কলাম লেখক ফোরামের পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা! মানবতার সেবায়, এওজবালিয়া সমাজকল্যাণ সংস্থা’! এখন থেকে ১২ কেজি গ্যাসের নির্ধারিত খুচরা মূল্য ৬০০ টাকা। দাম বেশি দেখলে ৯৯৯ এ কল করুন মাগুরায় বিদ্যুৎস্পৃষ্টে অটো চালকের মৃত্যু। সুনামগঞ্জে বিদেশে চাকরির লোভ দেখিয়ে অর্ধ কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে প্রতারক ছাদিক ! মাদারীপুরে পানি সম্পদ মন্ত্রণালয়ের উপমন্ত্রী কে এম এনামুল হক শামীম !

জামালপুরে প্রায় এক মাস যাবত পানিবন্দি ১০ লাখ মানুষ প্রয়োজনের তুলনায় বিতরণ অপ্রতুল্য !

  • মঙ্গলবার, ২৮ জুলাই, ২০২০
  • ১১ বার পড়া হয়েছে

এমরান হোসেন (জামালপুর প্রতিনিধি): জামালপুরে যমুনা ও ব্রক্ষ্মপুত্র নদীর পানি কমতে শুরু করলেও জেলার সার্বিক বন্যা পরিস্থিতি অপরিবর্তিত রয়েছে। ইতোমধ্যেই বন্যার পানিতে ডুবে আছে সাত উপজেলার আট পৌরসভা ও ৫৯ টি ইউনিয়ন।প্রায় এক মাস যাবত বন্যায় পানিবন্দি হয়ে পড়েছে ৯ লাখ ৯৪ হাজার ৭০৭ জন মানুষ।বন্যা দূর্গত এলাকায় আঞ্চলিক ও স্থানীয় সড়কসহ ট্রেন যোগাযোগ বন্ধ।তীব্র খাদ্য ও বিশুদ্ধ পানির চরম সংকটসহ ছড়িয়ে পড়ছে পানিবাহিত রোগবালাই।


গত ২৪ ঘন্টায় যমুনার পানি ২৩ সেন্টিমিটার কমে বিপদসীমার ৭৭ সেন্টিমিটার ও ব্রক্ষপুত্রর পানি ৫ সেন্টিমিটার কমে বিপদসীমার ১৩ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। জেলায় সার্বিক বন্যা পরিস্থিতি অপরিবর্তিত। আঞ্চলিক ও স্থানীয় সড়ক সহ রেললাইন পানিতে ডুবে যোগাযোগ বন্ধ হয়ে গেছে।পানিতে ডুবে গেছে বেশ কয়েকটি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স।ফলে চিকিৎসা ব্যবস্থা চরমভাবে ব্যাহত হচ্ছে।পানিতে তলিয়ে আছে গ্রামীণ হাট-বাজার,ব্যবসা প্রতিষ্ঠান। বন্যার পানিতে তলিয়ে গেছে সাড়ে নয় হাজার হেক্টর ফসলের জমি,গো চারন ভুমি,বসতবাড়ি।দূর্গত এলাকায় ত্রাণের জন্য হাহাকার শুরু হয়েছে। গো খাদ্যের অভাবে দুশ্চিন্তায় কৃষকরা।


জেলা ত্রাণ ও পুর্নবাসন কর্মকর্তা নায়েব আলী জানায়,জেলার ৯০ টি আশ্রয় কেন্দ্রে ১৬ হাজার ২৮৪ জন বন্যার্ত মানুষ আশ্রয় নিয়েছে।ইতোমধ্যে সদর উপজেলার জামতলী এলাকায় একটি ব্রিজ,সরিষাবাড়ি উপজেলার শুয়াকৈর ঝিনাই নদীর উপর নির্মিত ২০০ মিটার ঝিনাই ব্রিজের মাঝখানের তিনটি স্পেন ও শিশুয়া ঝিনাই ব্রিজের ৩০ মিটার সংযোগ সড়ক তীব্র স্রোতে নদীগর্ভে বিলীন হয়ে গেছে।মাদারগঞ্জে ৭০ মিটার বন্যা নিয়ন্ত্রণ বাধ ভেঙ্গে গেছে।এছাড়াও ১৫ হাজার বসতঘর পানির স্রোতে ভেঙ্গে গেছে।৬৭৭ টি গ্রামের প্রায় ২ লাখ ৪৮ হাজার ৬৩৪ টি পরিবার পানিতে নিমজ্জিত।পানির নিচে তলিয়ে আছে ৫ হাজার ৯৭টি নলকূপ ও ৬ হাজার ২৯৫ টি ল্যাট্রিন।

জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে এখন পর্যন্ত ৫১০ মেট্রিকটন চাল,নগদ ২৪ লাখ টাকা, ৭ হাজার প্যাকেট শুকনো খাবার,২ লাখ টাকার শিশু খাদ্য ও ৬ লাখ টাকার গো খাদ্য বিতরণ করা হয়েছে।জেলায় ত্রাণ বিতরণ অব্যাহত রয়েছে।
জামালপুর জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের পক্ষ থেকে বন্যা দূর্গত এলাকায় প্রাথমিক চিকিৎসা সেবা দেওয়ার জন্য ৮৪ টি মেডিকেল টিম গঠন করা হয়েছে।

ভালো লাগলে এই পোস্টটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই কেটাগরির আরো খবর
© All rights reserved 2020 srejonbangla52tv

প্রযুক্তি ও কারিগরি সহায়তাঃ WhatHappen